Monday, 9 January 2017

http://www.kalerghari.com/2017/01/09/%E0%A6%AF%E0%A7%87%E0%A6%AD%E0%A6%BE%E0%A6%AC%E0%A7%87-%E0%A6%86%E0%A6%AA%E0%A6%A8%E0%A6%BE%E0%A6%B0-%E0%A6%AB%E0%A7%87%E0%A6%B8%E0%A6%AC%E0%A7%81%E0%A6%95-%E0%A6%85%E0%A7%8D%E0%A6%AF%E0%A6%BE/

Monday, 28 November 2016

একটি মহাপ্রলয়ের জন্য প্রার্থনা

একটি মহাপ্রলয়ের জন্য প্রার্থনা

বিস্তীর্ণ মরুর আগুনমুখো বালুকার পৃষ্ঠদেশে মগজখেকো সূর্য মাথায় 
তোমার কাছে একটি মহাপ্রলয়ের চেয়ে বেশি আর কিছুই চাওয়ার নেই প্রভু

তুমি তো সেই কবেই বিষচোখা সিডর হয়ে গিয়েছ
তোমার দৃষ্টিতে আর পোশাকি বেড়ালগুলোর গৃহঘাতক বাঘ হয়ে যাওয়া প্রতিবিম্বিত হয় না

তুমি তো সেই কবেই টিকি দাঁড়ির মুখোশে মসজিদে মন্দিরে
প্রসাদ-তবারক হাসিলের মুরাক্বাবায় মগ্ন হয়ে রয়েছো প্রভু
কী করে অনুভব করবে তুমি
৬ মাস বয়েসী জানে আলমের ক্ষুধায়, পিপাসায় খুন হয়ে যাওয়ার করুণ অনূভুতি
কোটি কোটি রোহিঙ্গা অরোহিঙ্গা জানে আলমেরা
দিনের পর দিন একফোটা মাতৃদুগ্ধ নয় জলের পিপাসায় খুন হয়ে যাচ্ছে
আর তুমি পড়ে আছো তোমার লোভাতুর জিহ্বার সেবায়েত হয়ে

প্রভু তুমি তো সেই কবে থেকেই কেতাবী গণতন্ত্রী
কী করে জানবে তুমি
এখানে গণতন্ত্রের নামে হুমায়ুন আজাদের মহান শয়তান নাটক মঞ্চস্থ হয় অষ্টপ্রহর
এখানে যে যত বড় শঠ, ধূর্ত
সে তত  উচ্চতর সনদধারী গণতন্ত্রী

হে প্রভু তুমি সেই কবের মহা জঙ্গল পরিকল্পনাবিদ
একালে অভিনব এক রূপ দিয়েছ জঙ্গলের
তোমার নকশায় পরিকল্পিত আধুনিক সভ্য জঙ্গলের নাম দাঁড়িয়েছে: রাষ্ট্র
তোমার পুরোনো জঙ্গল আর আধুনিক রাষ্ট্রের ধর্মে ও প্রকৃতিতে পার্থক্য নাই বিশেষ
জোর যার মুল্লুক তার দুটোরই মৌলিক আইন
একটাতে বলশালী সিংহ করে নিরীহ হরিণ শিকার
অন্যটাতে বস্ত্রবাস্তুহীন মজুরের ঘামের দামে গড়ে ওঠে
হোয়াইট হাউস, বঙ্গভবন, ওয়াশিংটন, গুলশান

তাই তো আজ আর তোমার দরবারে কোনও ফরিয়াদ নিয়ে আসতে পারিনি
জগতের সমস্ত মজলুমের পক্ষে অন্তিম এক প্রার্থনা নিয়ে এসেছি
হে জগৎ সমূহের মালিক! দোহাই তোমার!
এমন করে আর পিষে মেরো না আমাদের
তোমার মহাশক্তিধর ওষ্ঠের অল্প জোরের ফুঁৎকারে
মূল্যহীন ছাইয়ের মতন, রাজপথের পরিত্যক্ত ধূলোর মতন
উড়িয়ে দাও আমাদের
আসমানে জমিনে, পাতালে, সাগরে মহাসাগরে
ছিন্নবিন্ন, নির্বংশ করে দাও আমাদের আবাল বৃদ্ধ বনিতা বংশসমূদয়

থাকো তুমি মহাসুখে
মসজিদে মন্দিরে গির্জায় প্যাগোডায়Ñ
তোমার প্রিয়তম জর্জ ডব্লিউ বুশ, অং সাং সূচি
আল-সৌদ, মোদী, এলিজাবেথ আর বুনো ইসরাইলিদের নিয়ে
একটি মহাপ্রলয়ের জন্য নিরভিমান এই প্রার্থনা আমার কবুল করে নাও মালিক!
চিরতরে মুক্তি দাও আমাদের

ওয়াজেদ দেবদূত
২৮.১১.২০১৬
01711167940
wazeddevdoot@lawyer.com


#SaveRohingya #StopRohingyaKilling #OIC #UN #US #UK #Burma #BBC #VOA #Iran #WazedDevdoot

Sunday, 16 October 2016

যে কারণে বন্দুকযুদ্ধ মঙ্গলজনক



সিনেমার সৎ সাহসী বীরটাইপের পুলিশ আর আমাদের দেশের বাস্তব পুলিশ প্রায় সেইম জিনিশপার্থক্য হইলো এইটুকুই, সিনেমার পুলিশদের দিয়ে কাহিনিকার নিজের ইচ্ছে মতন হিরোগিরি করানআর বাস্তবের পুলিশরা জাতির প্রতি পবিত্র দায়িত্ব রক্ষার্থে হিরোগিরি করেনসিনেমার  একেকজন সৎ সাহসী এসিপি বা ইন্সপেক্টর কাহিনিকারদের দয়ায় ডজন ডজন গুণ্ডা ভিলেনকে একাই কুপোকাত করে ফেলতে পারেনবাস্তবের পুলিশরাও রাতবিরাতে জঙ্গীদলের সাথে, সন্ত্রাসবাদী গ্যাংয়ের সাথে বন্দুকযুদ্ধে অবর্তীর্ণ হনবাস্তবে ফিল্মি স্টাইলের বন্দুকযুদ্ধে এসিপিরা বা ইন্সপেক্টররা সাধারণত য্দ্ধু ময়দানে নামেন নাযদিওবা ইন্সপেক্টর যুদ্ধে নামেন, সিনেমার হিরো ইন্সপেক্টরের মতন একা নামেন নাবন্দুকযুদ্ধে হয়ত ডজন ডজন সন্ত্রাসী নামেপুলিশও তাই নামে প্লাটুন প্লাটুন
তো সিনেমার আর বাস্তবে সাদৃশ্য দেখতে পাবেন এইখানে, সিনেমার নিরস্ত্র পুলিশ অফিসার একাই হালি হালি গুণ্ডাকে ফেলে দেয়দেশে মানবাধিকার প্রতিষ্ঠিত করেসত্য প্রতিষ্ঠা করেসমাজে রাষ্ট্রে আইনের শাসন কায়েম করেআর বাস্তব বন্দুকযুদ্ধে আধুনিক অস্ত্রে সুসজ্জিত সন্ত্রাসীরাই শুধু ধড়াম ধড়াম গুলি খেয়ে পড়ে যায়বীর বন্দুকযোদ্ধা ইন্সপেক্টররা, সাব-ইন্সপেক্টররা বা তাঁদের বন্দুকযুদ্ধ বাহিনীর কমান্ডোদের গায়ে কখনোই গুলি ফুটে না
এভাবে জাতির সাহসী সন্তান বন্দুকযোদ্ধারা ১৯৭১-এ ৩০ লাখ মানুষের রক্তে অর্জিত, ২ লক্ষ মা-বোনের সম্ভ্রমের বিনিময়ে অর্জিত স্বাধীন সার্বভৌম, অসাম্প্রদায়িক, গণতান্ত্রিক, বিশ্ব-শান্তির প্রতীক সোনার বাংলার মানবাধিকারের সুরক্ষা দিয়ে চলেছেনগণতন্ত্রের সুরক্ষা দিয়ে চলেছেনআইনের শাসন যথাযথভাবে অক্ষুন্ন রেখে চলেছেনআইনের প্রতি সর্বাত্মক শ্রদ্ধার্ঘ্য অর্পণ করে চলেছেনফ্রেমে বাঁধাই করে রাখার মতন কাজ করে চলেছেন তাঁরা সমাজের জন্য, রাষ্ট্রের জন্য

জয় পুলিশ বাহিনী, জয় বাংলা­­­­­­